www.durbinnews.com::জানি এবং জানাই

পার্বত্য চট্টগ্রাম ভারতের অংশ-ত্রিপুরার চাকমা নেতাদের দাবি



 দূরবীন ডেস্ক    ১৮ আগস্ট ২০১৯, রবিবার, ৭:৩২   চলতি হাওয়া বিভাগ


ত্রিপুরার চাকমা সম্প্রদায়ের নেতারা দাবি করেছেন, বাংলাদেশের পার্বত্য চট্টগ্রাম ‘ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ’। ভারতের ইংরেজি দৈনিক দ্য ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস শনিবার এক প্রতিবেদনে ত্রিপুরার চাকমাদের এ দাবির খবর দিয়েছে। এতে বলা হয়েছে, ২০১৬ সাল থেকে ১৭ আগস্টকে কালো দিবস হিসেবে উদযাপন করে আসছে চাকমা ন্যাশনাল কাউন্সিল অব ইন্ডিয়া ও ত্রিপুরা চাকমা স্টুডেন্ট এসোসিয়েশন। শনিবার ত্রিপুরার আগরতলা, কাঞ্চনপুর, পেচারঠাল, কুমারঘাট, মানু, চাইলেঙটা, চৌমানু, গান্দাছেড়া, নতুনবাজার, সিলাছড়ি, বীর চন্দ্রমানু এলাকায় বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করে ভারতীয় চাকমাদের এ দুই সংগঠন। চাকমা ন্যাশনাল কাউন্সিল অব ইন্ডিয়ার ত্রিপুরা শাখার মহাসচিব উদয় জ্যোতি চাকমা ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে বলেন, ১৯৪৭ সালে পাকিস্তানের কাছে পার্বত্য চট্টগ্রামকে হস্তান্তরের ঐতিহাসিক অন্যায়ের প্রতিবাদে এই কালো দিবস উদযাপন করা হয়। চাকমা ন্যাশনাল কাউন্সিল অব ইন্ডিয়ার ত্রিপুরা শাখার ভাইস প্রেসিডেন্ট অনিরুদ্ধ চাকমা বলেন, ‘আমরা চাকমা জনগোষ্ঠীর মানুষের বিরুদ্ধে জাতিগত নিধন, অস্থিরতা ও অবিচারের প্রতিবাদে প্রত্যেক বছর এই কালো দিবস উদযাপন করছি। আমরা মনে করি, পার্বত্য চট্টগ্রাম ভারতের অবিচ্ছেদ্য অংশ এবং এ ব্যাপারে আন্তর্জাতিক আদালত ইন্টারন্যাশন্যাল কোর্ট অব জাস্টিসের কাছে ন্যায়বিচার এবং সহানুভূতি কামনা করছি।




 এ বিভাগের অন্যান্য


রাব্বানীর উদ্দেশ্যে ছাত্রলীগ নেত্রী: আপনাকে আপনার মতো করে প্রটোকল দেইনি বলে পদ পাইনি


সুরমা নদীর আবর্জনা পরিষ্কার করলেন ৩ বৃটিশ এমপি


শোভনকে নেতাকর্মীরা যেন চেনেনই না


জাবি ভিসির কাছে চাঁদা চাওয়া প্রসঙ্গে রাব্বানী: ন্যায্য পাওনা দাবি করেছিলাম


আমরা এখন প্রজায় পরিণত হয়েছি


ছাত্র রাজনীতিতে আস্থা নেই কেন?


স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে নিয়ে কটূক্তি, ডেপুটি জেলার ক্লোজড


রোহিঙ্গা তরুণীকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বহিষ্কার করা কি সঠিক?


মইনুল হোসেন কেন বার বার কারাগারে?


বাংলাদেশে ধনীদের আয় বাড়ার হার বিশ্বে সর্বোচ্চ


এক পর্দার দাম ৩৭ লাখ টাকা!


মুসলিম নারীদের অধিকারের পক্ষে সরব বৃটিশ শিখ এমপি


জামিন না মঞ্জুর, ফের কারাগারে ব্যারিস্টার মইনুল


জামিন বহাল, মুক্তি পাচ্ছেন মিন্নি


বাদ পড়াদের ফিরিয়ে নিতে বাংলাদেশকে বলা হবে: আসামের অর্থমন্ত্রী





All rights reserved www.durbinnews.com